Home / মিডিয়া নিউজ / জোর করে চুম্বন, সেদিন কেঁদেও পাড় পাননি অভিনেত্রী রেখা

জোর করে চুম্বন, সেদিন কেঁদেও পাড় পাননি অভিনেত্রী রেখা

বলিউড বিশ্বের অন্যতম সিনেমা তৈরীর প্রতিষ্ঠান এটি। আর এই কারনে ভারতের প্রায় সবারই একটি

স্বপ্নের জায়গা জুড়ে থাকে এই বলিউড। আর এই বলিউডেই ঘটে অনেক অনেক জানা অজানা ঘটনা।

বিশেষ করে এই সিনে পাড়ায় এমন এমন সব গল্প থাকে শুনলে অনেকেরই চোখ কপালে উঠে যেতে

পারে। বিশেষ করে নতুন যখন কেউ এই বলি পাড়ায় পা রাখে তখন তার সফর টা বেশ ভালো থাকে

না। এবার জানা গেল এক সময়ের বলিউড কাপানো অভিনেত্রীর শুরুর দিকের কথা।বলিউডে পা রেখে রেখার স্মৃতি কতোটা সুন্দর ছিলো, কতোটা সুন্দর ছিলো তার পথ চলার শুরুটা! সেই অভিজ্ঞতার কথা সামনে এসেছিল তার বায়োগ্রাফিতে।

বাঙালি অভিনেতা বিশ্বজিৎ চট্টোপাধ্যায়। তখন তিনি ডাক সাইটের অভিনেতা। একের পর এক হিট ছবি তার ঝুলিতে। বয়স তখন বিশ্বজিতের ৩০। বিপরীতে পেলেন ১৫ বছর বয়সের রেখাকে।

সালটা ১৯৬৯। শুটিংয়ের মাঝেই রেখার ঠোঁটে হঠাৎ চুম্বন। চোখ বেয়ে পানি পড়েছিলো রেখার। টানা পাঁচ মিনিটের বেশি সময় ধরে চলা এ চু’/ম্ব’/নে’/র সময় ক্যামেরার পেছন থেকে হওয়া উচ্ছ্বাস, ম’/লে’/স্ট্রে’/শ’/ন আজো ভোলেননি অভিনেত্রী।

মেহবুব স্টুডিওতে চলছিলো শুটিং। ছবির নাম ছিল ’আনজানা সফর’। সেখানেই ঘটে এই ঘটনা। রেখা মেনে নিয়েছেন তখন। যদিও তা কাউকে বুঝতে না দিয়ে মুখ বুঁজেই সহ্য করেছিলেন সব। রেখার চোখ থেকে পানি পড়তেও তখন সকলেই দেখেছিলেন।

বইতে উল্লেখ থাকা একটি অংশে স্পষ্ট বলা থাকে, পরিচালক কুলজিৎ, রাজা ও বিশ্বজিৎ তিন জনের পরিকল্পনা ছিলো এটা। রোম্যান্টিক দৃশ্যে শুটের বিস্তারিত আলোচনা তাদের মধ্যে আগে থেকেই হয়ে গিয়েছিলো। শুটের আগে পর্যন্ত কিছুই জানতেন না রেখা।

যখনই বিশ্বজিৎ রেখাকে তার কাছে নিয়ে ঠোঁটে ঠোঁট দিলেন, তখনই চমকে উঠেছিলেন তিনি। না পরিচালক কাট বলেছিলেন, না বিশ্বজিৎ তাকে ছেড়েছিলেন।

বর্তমানে তেমন একটা অভিনয় জগতে দেখা যায় না এক সময়ের পর্দা কাপানো এই অভিনেত্রীকে। সিনেমা জগত থেকে অনেকটা দুরেই আছেন তিনি। তবে মাঝে মধ্যে হাজির হন টিভি চ্যানেল গুলোর অনুষ্ঠানে। সেখানে তাকে দেখা যায় ছোট পর্দায়।

About Nusraat

Check Also

‘আমি কোনো ফকিরনি পরিবারের মেয়ে না’, নীলা চৌধুরীকে শাবনূর

চিত্রনায়ক সালমান শাহর মৃত্যুর ২৪ বছর পর পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনের (পিবিআই) তদন্ত প্রতিবেদন প্রকাশের …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *