Home / মিডিয়া নিউজ / শিক্ষকতা পেশা উপভোগ করছেন ঈশিতা

শিক্ষকতা পেশা উপভোগ করছেন ঈশিতা

সম্প্রতি ঈশিতা ধারণা দিয়েছিলেন, নতুন কাজ শুরু করতে যাচ্ছেন তিনি। কিন্তু কী সেই কাজ,

তা আর বলেননি। গত সোমবার বিকেলে জানালেন, তিনি এখন শিক্ষকতা করছেন। ঢাকার একটি

বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ে যোগ দিয়েছেন তিনি। এরই মধ্যে মাসখানেক হয়ে গেছে। আর শিক্ষকতা পেশা উপভোগ করছেন তিনি।

ছোটবেলা থেকে টেলিভিশন দাপিয়ে বেড়ান রুমানা রশিদ ঈশিতা। ‘নতুন কুঁড়ি’র সেই ঈশিতা পরিণত বয়সে এসে নিজের প্রতিভার ঝলক দেখান। অভিনয় আর মডেলিংয়ে দেশের মানুষের মনে জায়গা করে নেন। কয়েক বছর ধরে ফাইভ, ফোর, থ্রি, টু, ওয়ান, জিরো অ্যাকশন—এই আঙিনায় অনেকটাই অনিয়মিত। স্বামী, সংসার, সন্তান আর নিজের পড়াশোনা নিয়ে ব্যস্ত তিনি। তবে বিশেষ দিবসে পরিচালকদের অনুরোধে নাটকে অভিনয় করেছেন। এসব নাটকে ঈশিতার অভিনয় প্রশংসিত হয়। সম্প্রতি প্রচারিত রেদওয়ান রনি পরিচালিত ‘ঝরা পাতার দিন’ নাটকে ঈশিতার অভিনয় সমালোচকদের পাশাপাশি সাধারণ দর্শকও পছন্দ করেছেন।

ঈশিতা ঢাকার হলিক্রস স্কুল থেকে এসএসসি পাস করেন। উচ্চমাধ্যমিকে ভর্তি হন ভিকারুননিসা নূন কলেজে। এরপর নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ব্যবসায় প্রশাসন বিভাগে স্নাতক করেন। একই বিশ্ববিদ্যালয় থেকে এমবিএ করেছেন ঈশিতা। জানালেন, মাসখানেক হয় সাউথইস্ট বিশ্ববিদ্যালয়ে স্কুল অব বিজনেস বিভাগে পার্টটাইম ফ্যাকাল্টি হিসেবে যোগ দিয়েছেন। শিক্ষার্থীদের তিনি মার্কেটিং বিষয়ে পড়াচ্ছেন। নতুন এই পেশা কেমন উপভোগ করছেন? ঈশিতা বলেন, ‘খুব ভালো লাগছে। সিরিয়াসলি খুবই ভালো লাগছে।’

ঈশিতা জানালেন, এই মুহূর্তে শিক্ষকতা পেশাকে বেছে নেওয়ার পেছনের কারণ আছে। বললেন, ‘এটা একেবারেই অন্য রকম পেশা। আমার আরেকটু লেখাপড়া করার ইচ্ছা আছে। এই যে আরেকটু পড়ালেখার করার ইচ্ছা, তার জন্য পরিবেশ দরকার। অনেক চিন্তা করে দেখেছি, পড়াশোনা আরও করতে হলে আমার জন্য শিক্ষকতা পেশা সবচেয়ে বেশি সুবিধা হয়।’

শিক্ষকতা পেশা শুরুর আগে পরিচিতজনদের অনেকে অনেক ধরনের কথা বলেছেন। তারকা হওয়ার কারণে নানা পরিস্থিতির মুখোমুখি হতে হয়। তবে শিক্ষকতা পেশা শুরুর পর সেসবের দেখা পাননি ঈশিতা। বললেন, ‘আমি যদি পড়ালেখা শেষ করে শিক্ষকতা পেশায় আসতাম, তাহলে একরকম হতো ব্যাপারটা। কিন্তু এখন ব্যাপারটা অন্য রকম। পড়াশোনা শেষ করে ১১ বছর চাকরি করে তারপর শিক্ষকতা পেশায় এসেছি। যাদের পড়াচ্ছি, তারা আমার চেয়ে অনেক ছোট। এই যেমন, যে বইটা আমি শিক্ষার্থীদের পড়াই, সেটা আমি পড়েছি ১৯৯৯ সালে।’

শিক্ষকতা পেশার অভিজ্ঞতা নিয়ে ঈশিতা বললেন, ‘প্রায়ই শুনি, এখন শিক্ষার্থীরা কিছুই জানে না, পড়ে না—আরও কত কী! তা পুরোপুরি ভুল। আমি বলব, আমাদের চেয়ে আজকের ছেলেমেয়েরা অনেক বেশি জানে। প্রযুক্তি এখন তাদের হাতের মুঠোয়। আমাদের সময় ক্লাসে শিক্ষককে একটা প্রশ্ন জিজ্ঞেস করতে দুইবার ভেবেছি। অথচ এখন শিক্ষার্থীরা কী অসাধারণ আর বুদ্ধিদীপ্ত প্রশ্ন করে, কথা বলে!’

ঈশিতার আশা, শিক্ষকতায় নিয়মিত হবেন তিনি।

অভিনয়ের বাইরে গত মাসের প্রথম দিকে নতুন একটি গান প্রকাশ করেছেন ঈশিতা। ‘তোমার জানালায়’ শিরোনামের এই গানের কথা লিখেছেন সোহেল আরমান এবং সুর ও সংগীত পরিচালনা করেছেন ইবরার টিপু।

About Nusraat

Check Also

‘আমি কোনো ফকিরনি পরিবারের মেয়ে না’, নীলা চৌধুরীকে শাবনূর

চিত্রনায়ক সালমান শাহর মৃত্যুর ২৪ বছর পর পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনের (পিবিআই) তদন্ত প্রতিবেদন প্রকাশের …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *