Home / মিডিয়া নিউজ / অভিনয় দক্ষতার পাশাপাশি একজন অভিনেত্রীর গ্লামার এবং ফিগার থাকাটাও জরুরী – অনিন্দিতা

অভিনয় দক্ষতার পাশাপাশি একজন অভিনেত্রীর গ্লামার এবং ফিগার থাকাটাও জরুরী – অনিন্দিতা

বিনোদন ডেস্ক: কলকাতা এবং মুম্বাইতে নিয়মিত মেগা সিরিয়াল ও চলচ্চিত্রে অভিনয় করছেন অনিন্দিতা

সরকার। অনেকদিন পর আবার তিনি আলোচনায় এলেন। সম্প্রতি তার সাক্ষাৎকার ছেপেছে প্রভাবশালী

ইংরেজী কাগজ ব্লিট্জ। বাংলাদেশের একটি শীর্ষ প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান তাদের মেগা সিরিয়ালে অনিন্দিতাকে কাস্ট করার কথা ভাবছে। সব কিছু ঠিকঠাক থাকলে জুন মাসেই ঢাকায় আসবেন ভারতীয় ছোটপর্দার এই নায়িকা।

অনিন্দিতার বাবা একজন ব্যাংকার হলেও তিনি থিয়েটারের সাথে জড়িত ছিলেন। পরিবারের আরো কিছু সদস্যও অভিনয়ের সাথে জড়িত। একারণেই উচ্চ শিক্ষা লাভের পর অনিন্দিতাও অভিনয়ে নাম লেখান।

এ পর্যন্ত বেশ কিছু চলচ্চিত্রে কাজ করার পাশাপাশি নিয়মিত কাজ করছেন মেগা সিরিয়ালে। বর্তমানে শ্যুটিংয়ে আছেন মুম্বাইতে। যদিও করোন মহামারীর কারণে আপাতত শ্যুটিং বন্ধ। কাজ না থাকায় ঘরে বসেই সময় কাটছে তার। মাঝেমাঝে ফেইসবুক লাইভে এসে ভক্তদের শেখাচ্ছেন প্রাণায়াম। অনিন্দিতা বলেন, যেকোন কাজ করতে হলেই শারীরিক সুস্থতাটা খুব জরুরী। বিশেষ করে করোনা ভাইরাসের মতো মহামারীর কবল থেকে বাঁচতেও সুস্বাস্থ্য প্রয়োজন।

একজন অভিনেত্রীর কি কি গুন থাকা দরকার এই প্রশ্নের জবাবে অনিন্দিতা বলেন, প্রথমত অভিনয়টা জানতেই হবে। ক্যামেরার সামনে নিজেকে সাবলীলভাবে তুলে ধরতে হবে। পাশাপাশি একজন অভিনেত্রীর অবশ্যই গ্ল্যামার, ফিগার এবং সেক্স আপিল থাকা চাই।

বাংলাদেশে কাজ করতে আসা প্রসঙ্গে অনিন্দিতা বলেন, কথাবার্তা চলছে ঢাকার অন্যতম শীর্ষ প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান ক্রাউন এন্টারটেইনমেন্ট এর সাথে। আমি ভীষন এক্সসাইটেড। কারণ, বাংলাদেশ এমন একটা দেশ যারা বাংলা ভাষাকে মায়ের ভাষার মর্যাদা দিতে প্রাণ দিয়েছে। তাছাড়া ওপার বাংলার বাঙ্গালীদের সাথেই এমনিতেই আমাদের আত্মার বন্ধন। আমাদের ভাষা অভিন্ন, সংস্কৃতি অভিন্ন, জীবনযাত্রাও অভিন্ন। আসলে ওই রাজনৈতিক সীমানাটা ভুলে গেলে আমরা সবাই এক। আমরা বাঙ্গালী।

তিনি বলেন, বাংলাদেশ থেকে এর আগেও কাজের অফার এসেছে অনেক। কিন্তু আমি কাজের বিষয়ে খানিকটা চুজি। একারণেই ক্রাউন এন্টারটেইনমেন্ট এর মতো নামিদামি প্রতিষ্ঠানের সাথে কাজের বিষয়ে আমার আগ্রহ। কারণ, ওই প্রতিষ্ঠানের সাথে ঢাকার সেরা নির্মাতারা কাজ করছেন। শুনেছি ওদের কাজের স্ট্যান্ডার্ডও খুব ভালো। কলকাতার আরো কিছু শিল্পীর সাথেও ক্রাউন কথাবার্তা বলছে। নাটক, চলচ্চিত্র এমনকি মিউজিক ভিডিও’র জন্যে। সবশেষে অনিন্দিতা সরকার বাংলাদেশীদের প্রতি বাংলা নতুন বছরের শুভেচ্ছা জানান।

About Nusraat

Check Also

‘আমি কোনো ফকিরনি পরিবারের মেয়ে না’, নীলা চৌধুরীকে শাবনূর

চিত্রনায়ক সালমান শাহর মৃত্যুর ২৪ বছর পর পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনের (পিবিআই) তদন্ত প্রতিবেদন প্রকাশের …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *