Home / মিডিয়া নিউজ / অমি*তাভ বচ্চনের চোখে স*বচেয়ে সুন্দরী নারী তি*নি

অমি*তাভ বচ্চনের চোখে স*বচেয়ে সুন্দরী নারী তি*নি

অভিনয় দিয়ে তো তিনি শ্রদ্ধার আসনে অনেক আগেই বসেছেন, তবে এক’জন মানুষ তার স’ম্মানটা

আরও বেশি। তি’নি অমিতাভ বচ্’চন। ভারতে তার নাম উচ্চারিত হলে সবাই শ্রদ্ধায় নত হয়ে যান।

তিনি তারকাদের তারকা। বলিউড তাকে শা’হেনশাহ নামে ডাকে, সম্মানিত করে। তাকে অনুসরণ কিংবা অনুকরণ করেন এমন ব্যক্’তির সংখ্যা নেহায়েত কম না।

তবে তিনিও যে কাউকে না ‘কাউকে অনুসরণ ক’রেন এটা অনেকেরই অজানা। সম্প্র’তি এক সাক্ষাৎকারে তার ‘জীবনের দুজন অনুসরণীয় ব্যক্তির কথা ফাঁস করেছেন অভিনেতা।

অমিতাভ বলেন, ওয়াহিদা ‘রেহমান তার চোখে ‘সবচেয়ে সুন্দরী নারী। ওয়া’হিদা রেহমানকে একজন সম্পূ’র্ণ ভারতীয় নারী’ বলা যায়। গোটা জীবনে ওয়াহিদা রেহমানের মতো এত সুন্দরী আর কাউকে দেখেননি বলেও জানান অমিতাভ।

তিনি ‘আরও বলেন, ওয়াহিদা ‘রেহমান অত্যন্ত ‘ভালোমানের একজন’ অভিনেত্রী। বলিউ’ডে তার মতো ‘সাবলীল অভিনয় অ’নেকেই করতে পারেন না। বলিউডে তার বহু অবদান আছে।

স্মৃতি হাতড়ে অমিতাভ’ বলেন, ‘রেশমা অর শেরা’ ছবি’র শুটিঙয়ের’ সময় সেখানে উপস্থিত ছিলে’ন অমিতাভ। ওই সিনে’মার এ’কটি দৃশ্যের শুট করতে সুনীল দত্ত ও ওয়াহিদা রেহমানকে মরুভূমিতে নিয়ে যাওয়া হয়।

মরুভূমির অত্যন্ত ‘গরম বালিতে ‘খালি পায়ে দাঁড়াতে পার’ছিলেন না ওয়াহিদা। ‘তখন পরিচালক নির্দেশ দেন, ও’য়াহিদা জুতো পরে ওই দৃশ্যের শুট করবেন। কথাটি শোনার পর ওয়াহিদার জন্য জুতো হাতে নিয়ে যান অমিতাভ।

উল্লেখ্য, ত্রিশূল, আদালত, নমক হা’লালসহ বেশ কয়েকটি সিনে’মায় ওয়াহিদা রহমানের ‘সঙ্গে স্ক্রিন শেয়ার ‘করেন অমিতাভ।

এছাড়া বাংলা’দেশের’ সঙ্গেও ওয়াহি’দা রেহমানের অ’ন্যরকম এক’টি সম্পর্ক ‘আছে। ১৯৭১’ সালের ২৫শে মা’র্চ রাত্রিতে ‘বাংলাদেশে গণহত্যা শুরু হলে মুম্বাইয়ের অধিকাং’শ সংবাদপত্র এর সচিত্র সংবাদ প্র’কাশিত হয়। মুম্বাইয়ের পেশাজী’বী সচেতন মানুষ’ বাংলাদেশে গ’ণহত্যার প্রতিবাদে ঐক্যবদ্ধ হন।-টি’বিটি

About Nusraat

Check Also

‘আমি কোনো ফকিরনি পরিবারের মেয়ে না’, নীলা চৌধুরীকে শাবনূর

চিত্রনায়ক সালমান শাহর মৃত্যুর ২৪ বছর পর পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনের (পিবিআই) তদন্ত প্রতিবেদন প্রকাশের …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *