Home / মিডিয়া নিউজ / মেয়েদের জন্যই মানব সভ্যতা বেঁচে আছে : কঙ্গনা

মেয়েদের জন্যই মানব সভ্যতা বেঁচে আছে : কঙ্গনা

বিনোদন ডেস্ক : ঝাঁসির রাণী ‘লক্ষ্মীবাঈ’ ৷ ইতিহাসের পাতায় যার নাম লেখা স্বর্ণাক্ষরে৷ যাকে নিয়ে

কৌতূহল আজও৷ সেই কৌতূহলেই এবার ঝাঁসির রাণী হলেন বলি-তারকা কঙ্গনা রানাওয়াত৷ আসলে

রাণী লক্ষ্মীবাঈ-এর জীবনী নিয়েই তৈরি হওয়া ছবি ‘মণিকর্ণিকা : দ্য কুইন অব ঝাঁসি’তে মুখ্য ভূমিকায় রয়েছেন কঙ্গনা৷

এই সিনেমায় কঙ্গনার আশপাশের মহিলা চরিত্রগুলিও গুরুত্বপূর্ণ। কঙ্গনা নিজেও নারীশক্তিতে বিশ্বাসী। তিনি জানান, মেয়েদের দমন করাটা এবার বন্ধ হওয়া দরকার। লক্ষ্মীবাঈয়ের সাহসিকতা ও দৃঢ়তার সঙ্গে তিনি নিজেকে মেলাতে পেরেছেন।

কঙ্গনা বলেন, “ছোটবেলায় আমি একেবারে আদর্শ বাচ্চা ছিলাম। খুবই অনুগত ছিলাম। কিন্তু একটা সময় উপলব্ধি করি সব ছেড়ে বেরোনো দরকার। তারপরে কারও আমার সঙ্গে কথা বলারও অনুমতি ছিল না। কিন্তু মা ঠিক লুকিয়ে ফোন করে জিজ্ঞাসা করতেন, কি খেয়েছো। সেই সময়ে উপলব্ধি করি প্রেম আর ঈশ্বরই আসল সত্য। আর দুটোই নারী। সেই থেকেই আমি নারীশক্তিতে বিশ্বাসী।”

‘কুইন’ খ্যাত এই অভিনেত্রী বলেন, “আমাদের আলাদা করে মেয়েদের শক্তিশালী করার দরকার নেই, তারা এমনিতেই শক্তিমতী, আর সে জন্যই আজও মানব সভ্যতা বেঁচে আছে। শুধু তাদের দমন করাটা বন্ধ হোক। তাদের মধ্যেকার সূক্ষ শক্তিকে চিহ্নিত করে সম্মান জানান। রানী লক্ষ্মীবাঈ নারীশক্তিতে বিশ্বাস করতেন এবং তাকে সম্পূর্ণ ব্যবহার করেছিলেন।”

এই সিনেমার মাধ্যমে সেই ঐতিহাসিক চরিত্রকে সম্মান জানাতে চান কঙ্গনা। কারণ এখানে মহিলাদের দৈহিক শক্তির দিকটাও উঠে এসেছে।

সিনেমায় রানী লক্ষ্মীবাঈয়ের সেনাই তার শক্তি। সেই সেনাদল পুরোটাই মহিলাদের নিয়ে গঠিত। তারা যুদ্ধে পারদর্শী। অঙ্কিতা লোখান্ডে, মিষ্টিসহ আরো অনেকে রয়েছেন। প্রত্যেকের চরিত্র পরতে পরতে উন্মুক্ত হবে বলে জানিয়েছেন কঙ্গনা।

২০১৯ সালের ২৫ জানুয়ারি মুক্তি পাবে সিনেমাটি। অঙ্কিতা ঝলকারি বাঈয়ের চরিত্রে এবং মিষ্টি একজন তরুণ সেনানীর ভূমিকায় অভিনয় করছেন। জানা যায়, সিনেমার জন্য তাদের ঘোড়সওয়ারি এবং যুদ্ধের প্রশিক্ষণ দেওয়া হয়েছে। সূথ্র: এনডিটিভি

About Nusraat

Check Also

‘আমি কোনো ফকিরনি পরিবারের মেয়ে না’, নীলা চৌধুরীকে শাবনূর

চিত্রনায়ক সালমান শাহর মৃত্যুর ২৪ বছর পর পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনের (পিবিআই) তদন্ত প্রতিবেদন প্রকাশের …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *