Home / মিডিয়া নিউজ / হাঁপিয়ে উঠেছি, এবার অভিনয় ছেড়ে জীবনের বাকি সময়টুকু ইবাদত করে কাটাতে চাই:মিশা সওদাগর

হাঁপিয়ে উঠেছি, এবার অভিনয় ছেড়ে জীবনের বাকি সময়টুকু ইবাদত করে কাটাতে চাই:মিশা সওদাগর

বাংলাদেশের সিনেমা জগতের অন্যতম বড় একটি উজ্জ্বল নক্ষত্র মিশা সওদাগর। সিনেমা ক্যারিয়ারে

তিনি অসংখ্য সিনেমায় অভিনয় করেছেন। বলতে গেলে বাংলাদেশে রেকর্ড সংখ্যক সিনেমা করেছেন

তিনি। বাংলা সিনেমা মানেই দেখা যাবে তাকে। বিশেষ করে বাংলা সকল সিনেমায় তাকে খল নায়িকা

চরিত্রে দেখা যায়। তার এই সিনেমায় ক্যারিয়ারে তিনি পেয়েছেন অনেক কিছু। অর্থ যশ খ্যাতি প্রতিপত্তি

সবকিছুই পেয়েছেন সিনেমার মাধ্যমে। তবে এবার বললেন তার বিশ্রামের সময় হয়ে গেছে। তিনি এখন বিশ্রাম নিতে চান সিনেমা থেকে।

বেশ কয়েক বছর ধরে অভিনয় ছেড়ে দেওয়ার কথা বলে আসছেন মিশা সওদাগর। কিন্তু হাতে একের পর এক ছবির প্রস্তাব আসতে থাকায় কোনোভাবেই সরে দাঁড়াতে পারছিলেন না। তা ছাড়া শিল্পী সংকটের এই সময়ে নিজেকে গুটিয়ে নেওয়াটাও চলচ্চিত্রের জন্য ক্ষতি, তাই অভিনয় চালিয়ে যাচ্ছিলেন। তবে এবার চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নিয়েছেন এই খল অভিনেতা। হাতে যেসব ছবি আছে সেগুলো শেষ করে আগামী বছরই অভিনয়কে বিদায় জানাবেন। স্থায়ীভাবে আমেরিকায় বসবাসের সিদ্ধান্তও নিয়েছেন।

এবার যেন সত্যিই হাপিয়ে উঠেছে এই খলনায়ক। তাই বেশ কয়েক বছর ধরে অভিনয় ছেড়ে দেওয়ার কথা বলে আসছেন মিশা সওদাগর।তবে এবার চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নিয়েছেন এই খল অভিনেতা। হাতে যেসব ছবি আছে সেগুলো শেষ করে আগামী বছরই অভিনয়কে বিদায় জানাবেন। স্থায়ীভাবে আমেরিকায় বসবাসের সিদ্ধান্তও নিয়েছেন।

এ ব্যাপারে মিশা বলেন, ’টানা কাজ করে হাঁপিয়ে উঠেছি। বলতে গেলে জীবনের পুরো সময়টা চলচ্চিত্রেই দিলাম। ভালোবাসাও পেয়েছি মানুষের। এবার একটু অবসর দরকার। জীবনের বাকি সময়টুকু আমি আল্লাহর ইবাদত করে কাটাতে চাই। আমার ভক্তদের কাছে দোয়া চাই।’

প্রসঙ্গত, ১৯৮৬ সালে বাংলাদেশি বিনোদন জগতে আবির্ভাব তার। তৎকালীন সময়ে অভিনয়ের জন্য নতুন মুখ্য ছিল বাংলাদেশ চলচ্চিত্র। সে সময়ে এই সুযোগটি লুফে নিয়েছিলেন তিনি। এরপর থেকেই তার সফলতার গল্প শুরু। শুরুতে অনেক স্ট্রাগল করলেও প্রতিষ্ঠা করতে খুব বেশি সময় লাগেনি বাংলা চলচ্চিত্রের সর্বশ্রেষ্ঠ খলনায়ক কে।তবে নায়ক হিসেবে আবির্ভাব হয়েছিল তার কিন্তু নায়ক হিসেবে প্রথম দুটি সিনেমায় তিনি পাননি কোনো সাফল্য সিনেমাটি মুখ থুবরে পাবে বক্স অফিসে। এরপরে নাম লেখান খলনায়ক চরিত্রে। এরপর আর পিছু ফিরে তাকাতে হয়নি তাকে হিসেবে প্রতিষ্ঠিত হয়ে যান তিনি। এখনো পর্যন্ত কাজ করে চলছেন বাংলা সিনেমায়।বাংলাদেশে রেকর্ড ৯০০ টি সিনেমায় অভিনয় করেছেন তিনি।

About Nusraat

Check Also

‘আমি কোনো ফকিরনি পরিবারের মেয়ে না’, নীলা চৌধুরীকে শাবনূর

চিত্রনায়ক সালমান শাহর মৃত্যুর ২৪ বছর পর পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনের (পিবিআই) তদন্ত প্রতিবেদন প্রকাশের …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *